Monday, March 13, 2017

স্যাম ও পাঠাও বাইক সার্ভিসের ভাড়ার রিভিউ

পাঠাও (Pathao) এর মূল্য তালিকা:



বেজ ফেয়ার- ২৫ টাকা

প্রতি কিলোমিটার- ১২ টাকা

প্রতি মিনিট- ০.৫০ টাকা

২৫+(১২xকি.মি)+(০.৫xমিনিট)= সর্বমোট বিল।





স্যাম এর মূল্য তালিকা:



স্যামের কোনো বেজ ফেয়ার নেই।
প্রথম ৩ কি.মি. ৩০ টাকা এরপরের প্রতি কি.মি. ৮.৫ টাকা।

*** এখন স্যামের ভাড়া কিছুটা বেড়েছে। ভবিষ্যতে আরো বাড়ার আশঙ্কা আছে!!


স্যাম ও পাঠাও বাইক সার্ভিসের ভাড়ার তুলনা:










মিরপুর বর্ধিত পল্লবী থেকে আমার বনানী অফিসে আসতে স্যামে লেগেছে প্রায় ৭৮ টাকা আর পাঠাওতে পড়েছে ১৫৫ টাকা!

সুতরাং দেখা যাচ্ছে স্যামের ভাড়া তুলনামূলকভাবে পাঠাও এর ভাড়া থেকে অনেক কম ও রিজনেবল। :)

Saturday, June 6, 2015

'রু' আর 'র‍্য'

কমিকের ডায়ালগে 'রু' আর 'র‍্য' লিখতে গেয়ে নাকানি চোবানি খেয়েছেন Tauhidul Iqbal Sampad​ সেই সূত্রে এই ভিডিও টিউটোরিয়ালটির অবতারণা।

পদ্ধতি ক:
১. রাইট ক্লিক অন অভ্র আইকন> টুলস> output as ANSI.  ফন্ট সিলেক্ট করুন sutonny mj> বাংলা অ্যাক্টিভেট> 'র' লিখুন> 'ু'> ব্যাকস্পেস> 'ু'

পদ্ধতি খ:
১.  ভিডিওটি দেখুন।
২. যেসব যায়গায় 'রু' আছে সেসব যায়গায় স্পেস রাখুন।
৩. কাস্টম শেপ থেকে 'রু' নিন, যেখানে যেখানে দরকার মুভ টুল সিলেক্ট থাকা অবস্থায় Alt চেপে ড্র্যাগ করে করে বসান।

পদ্ধতি গ:
এইটা সবথেকে সহজ ও নির্ভেজাল পদ্ধতি। কোনো কিছুই করা লাগে না। সাধারণ ভাবে লিখলেই 'রু' বা 'র‍্য' হবে।
১. ফটোশপ সিসি ৬৪বিট বা ইলাস্ট্রেটর সিসি ৬৪ বিট ওপেন করুন।
২. ১. রাইট ক্লিক অন অভ্র আইকন> টুলস> output as ANSI.  ফন্ট সিলেক্ট করুন sutonny mj> বাংলা অ্যাক্টিভেট> 'র' লিখুন> 'ু'
ফুললি টেস্টেড। ভিডিওটির একদম শেষে দেখতে পাবেন।



আপডেট: আমি আর Sampad ঘাটাঘাটি করে বের করলাম আসলে ফন্টে ঝামেলা! এই ফন্টটা ইন্সটল করে নিয়ে চেক করতে পারেন। আর অবশ্যই মনে করে ANSI অ্যাক্টিভ করে টাইপ করবেন।


Saturday, April 18, 2015

অবাঞ্ছিত অতিথি দূরীকরণের উন্মাদীয় অত্যাধুনিক আসবাবপত্র!

(**এই ফিচারটি উন্মাদে প্রকাশিত হয়েছে)


এই শহুরে ব্যস্ততাময় জীবনে প্রায়ই কিছু অবাঞ্ছিত অতিথির উপদ্রবে আমরা আক্রান্ত হয়ে থাকি, যাদের আগমনের থেকে বহির্গমনে আমাদের কয়েকদিনের নাভিশ্বাসের পর স্বস্তিশ্বাস বেরিয়ে আসে। এদের উপদ্রব থেকে নিরুপদ্রবে থাকার জন্য উন্মাদের গবেষণা সেল তৈরি করেছে কিছু অত্যাধুনিক আসবাবপত্র। কীরকম হবে এর ব্যবহার তা জানতে পড়ুন-দেখুন-শিখুন এই ফিচার!




১. মাইনকাচিপা সোফা:
এই সোফায় বসামাত্র সোফার দুপাশ অবাঞ্ছিত অতিথিকে একটু পরপর আচমকা চেপে ধরে চিপে দিবে!



২. কেচকিমারা চেয়ার:
অবাঞ্ছিত অতিথি কোনো চেয়ারে বসতে গেলেই এর অত্যাধুনিক সেন্সর চেয়ারকে ফোল্ড করে তাকে কেচকি মেরে ধরবে





৩. দূরত্ববর্ধক ডাইনিং টেবিল:
এই অত্যাধুনিক ডাইনিং টেবিলে অবাঞ্ছিত অতিথি খেতে বসলে টেবিলের চারপাশ দিয়ে বেরিয়ে আসা বর্ধিত অংশ তাকে খাবারের নিকটে পৌঁছতে দেবে না!






৪. পিকপকেট বেসিন:
অবাঞ্ছিত অতিথি এই বেসিনে হাত-মুখ ধোয়ার জন্য যাওয়ামাত্র বেসিনের অ্যান্ড্রয়েড পিক-পকেটার সিস্টেম তার পকেট মেরে ফকির বানিয়ে দিবে।






৫. বুমেরাং জুতার র‍্যাক:
অবাঞ্ছিত অতিথি তার জুতা-স্যান্ডাল এই র‍্যাকে রাখামাত্রই র‍্যাকের ডিজিটাল থ্রোয়ার অতিথির দিকেই অব্যার্থ লক্ষে তার জুতা ছুড়ে মারবে।






৬. উচ্চতামূলক বিছানা:
রাতে অবাঞ্ছিত অতিথি অবস্থান করতে চাইলে তাকে শায়েস্তা করার সর্বোত্তম পদ্ধতি উচ্চতামূলক বিছানা। অতিথি বিছানায় শোয়ামাত্র বিছানাটি উচুতে উঠে গিয়ে সিলিং ফ্যানের কাছাকাছি চলে যাবে।



৭.সরাসরি সম্প্রচার টয়লেট:
এটি উন্মাদের সর্বাধুনিক আবিস্কার! এই টয়লেটে অবাঞ্ছিত অতিথি প্রবেশের পরপরই তার প্রতিটি কার্যক্রম (ঈষৎ সেন্সরকৃত) ইউটিউবে উন্মাদের চ্যানেলে সরাসরি সম্প্রচারিত হবে। অতিথিকে মানসিকভাবে ভেঙে দেয়ার জন্য একটা বিশাল স্ক্রিনের মনিটর টয়লেটে ফিট করে রাখতে হবে।